শনিবার ১৩ আগস্ট ২০২২ ২৯ শ্রাবণ ১৪২৯
 

‘বেহেশতে আছি’ বক্তব্যের ব্যাখ্যা দিলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী    পর্নোগ্রাফিতে শিকার নারীরা, পুরুষরা হ্যাকিংয়ের: গবেষণা     টি–২০ বিশ্বকাপ পর্যন্ত অধিনায়ক সাকিব    বঙ্গবন্ধু হত্যার যড়যন্ত্রকারীদের খুঁজতে এ বছরই কমিশন গঠন: আইনমন্ত্রী    সালমান রুশদির হামলাকারীর পরিচয় প্রকাশ    আগামিকাল ঢাকায় আসছেন জাতিসংঘ মানবাধিকার প্রধান     ডিমের হাফ সেঞ্চুরি পার   
পুলিশের পক্ষ থেকে তাশরীফকে ত্রাণ কার্যক্রম সহায়তার আশ্বাস
প্রকাশ: শুক্রবার, ২৪ জুন, ২০২২, ৪:০৫ অপরাহ্ন

সিলেট-সুনামগঞ্জের বানভাসি মানুষদের সাহায্যে এগিয়ে এসে দেশ তথা বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে থাকা বাংলাদেশিদের নজর কেড়েছেন তরুণ সংগীতশিল্পী তাশরীফ খান। ফেসবুক লাইভে আহ্বান জানিয়ে এ পর্যন্ত প্রায় দেড় কোটি তুলেছেন তিনি। সেই টাকা দিয়ে খাবার ও অতি প্রয়োজনীয় সামগ্রী তুলে দিচ্ছেন বানভাসিদের হাতে।

কিন্তু ২২ জুন সিলেটের একটি জায়গায় চা খেতে গিয়ে সেই তাশরীফই কিনা পুলিশের দুর্ব্যবহারের শিকার হয়েছেন। খেয়েছেন ধমকও। বৃহস্পতিবার (২৩ জুন) ফেসবুক লাইভে এসে সেই ঘটনার বর্ণনা দেন তরুণ এই গায়ক।

সেই লাইভের পরপরই বাংলাদেশ পুলিশের পক্ষ থেকে তাশরীফকে ফোন করা হয়েছে। জানানো হয়েছে, এখন থেকে সিলেটে ত্রাণ সহায়তা কার্যক্রমে তাকে সর্বাত্মক সহায়তা দেবে পুলিশ। পাশাপাশি যে পুলিশ সদস্য তাকে ধমক দিয়েছেন তাকে খুঁজে বের করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।

শুক্রবার (২৪ জুন) দুপুরে নিজেই ফেইজবুকে পোস্টের মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মানবিক তরুণ হিসেবে খ্যাতি পাওয়া তাশরীফ। এই গায়ক বলেন, ‘সেই লাইভের পরপরই পুলিশের পক্ষ থেকে আমি ফোন পেয়েছি। তারা আমাকে জানিয়েছেন আমাদের আগামী কার্যক্রমে সর্বোচ্চ সহযোগিতা করবেন। রাতেই একজন এসআই এসে আমাদের সঙ্গে দেখা করেছেন। বিভিন্ন সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছেন।’

তাশরীফ আরও যোগ করেন, ‘সিলেটের এয়ারফোর্ট থানা এবং কতোয়ালি থানার টহল গাড়ি একটু পরপর আমাদের কাছে আসছে। আমাদের খোঁজ খবর নিচ্ছে। আমাদের ত্রাণের নিরাপত্তা দিচ্ছে। সেদিন যে পুলিশ সদস্য আমাকে ধমক দিয়েছেন পুলিশের পক্ষ থেকে তাকে খুঁজে বের করে বিষয়টি জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে বলেও আমাকে আশ্বস্ত করা হয়েছে।’

এদিকে শুক্রবার নিজের ফেসবুক পেজে তাশরীফ লেখেন, ‘গতকাল রাতে ফেসবুক লাইভের পরপরই সিলেটের পুলিশ প্রশাসন আমাদের আস্বস্ত করেছেন আমাদের যে কোন প্রয়োজনে উনারা পাশে থাকবেন এবং ইতিমধ্যে উনারা আমাদের ত্রাণের নিরাপত্তা দেবার চেষ্টা করে যাচ্ছেন।’


জ/ আল

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ
সম্পাদক ও প্রকাশক : আক্তার হোসেন রিন্টু
বার্তা ও বাণিজ্যিক বিভাগ : প্রকাশক কর্তৃক ৮২, শহীদ সাংবাদিক সেলিনা পারভীন সড়ক (৩য় তলা) ওয়্যারলেস মোড়, বড় মগবাজার, ঢাকা-১২১৭
বার্তা বিভাগ : +8802-58316172, বাণিজ্যিক বিভাগ : +8802-58316175,+8801711443328, E-mail: [email protected], [email protected]
কপিরাইট © দৈনিক জবাবদিহি সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত | Developed By: i2soft