মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০১:৪০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
অবশেষে এসপি’র হস্তক্ষেপে থানায় মামলা! যশোরে চোরাই ইজিবাইকসহ আটক ৪ স্বাধীনতাবিরোধী চক্রই দেশের সাম্প্রদায়িক হামলার জন্য দায়ী: ইনু মানিকগঞ্জে জাতীয় স্যানিটেশন মাস ও বিশ্ব হাত ধোয়া দিবস উদযাপন চকরিয়ায় পরোয়ানাভুক্ত আসামী গ্রেফতার ডিমলায় নিখোঁজের পাঁচদিন পর তিস্তা নদী থেকে এক ব্যক্তির লাশ উদ্ধার সাম্প্রদায়িক হামলা চালিয়ে রাজনৈতিক ফায়দার চেষ্টা বিএনপি’রঃ নানক বাংলাদেশকে ৫০০ মিলিয়ন ইয়েন অনুদান দিচ্ছে জাপান এ মাসে প্রবাসী আয় ১০০ কোটি ডলার ছাড়ালো জয় বাংলা ইয়ুথ এ্যাওয়ার্ডের আবেদনের সময় বাড়লো ভোলাহাটে ভেজাল আইসক্রীম কারখানায় র‌্যাবের অভিযান ৫৯ বিজিবি’র শিয়ালমারা সীমান্তে অভিযান ॥ ফেন্সিডিলসহ আটক ১ ২৪ ঘন্টায় ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে নতুন ১৯০ জন রোগী ভর্তি অপারেশন শেষে আইসিইউতে খালেদা জিয়া উমরাহ পালনে আর ১৪ দিনের অপেক্ষা নয় ভারতের কেরালা রাজ্যে বন্যায় প্রাণহানিতে মোমেনের শোক বহিস্কৃত নেতাকে মনোনয়ন দেয়ার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন বিদ্যুৎ সম্পর্কিত সব মামলা দ্রুত নিষ্পত্তির সুপারিশ রৌমারীতে সার সংকটে কৃষক বিপাকে মেলান্দহে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত-১, আহত ২

বৈশ্বিক জঙ্গিবাদের রপ্তানিকারক না হয়ে যায় আফগানিস্তান

রিপোর্টারের নাম
প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০১:৪০ পূর্বাহ্ন
বৈশ্বিক জঙ্গিবাদের রপ্তানিকারক না হয়ে যায় আফগানিস্তান

যুক্তরাষ্ট্র তার ইতিহাসের দীর্ঘতম যুদ্ধ শেষ করে অনেকটা লজ্জাজনকভাবে আফগানিস্তান ছেড়েছে। কট্টর তালেবানের বিশ্বজুড়ে বৈধতার সংকট আছে, আছে দেশ পরিচালনার অনভিজ্ঞতাও। এ অবস্থায় চীন, রাশিয়া, পাকিস্তান, ভারত দেশটির ওপর প্রভাব বিস্তারের সুযোগ ছেড়ে দেবে না। তবে সাবধান সবাই। কেন না, ঐতিহাসিকভাবে বহু সাম্রাজ্যের কবর রচিত হয়েছে পাহাড়ি এই জনপদে।

মার্কিন সি-সেভেনটিন বিমান থেকে আফগানদের পতনের ছবি ইতিহাসবিদদের কাছে আগ্রাসন, ধর্মীয় উগ্রবাদ, ভুল নীতির সম্মিলিত পরাজয়ের প্রতিচ্ছবি।

প্রেসিডেন্সিয়াল ভবনে এখনও উড়ছে আফগান পতাকা। কতক্ষণ তা থাকবে জানা নেই কারো। এই পতাকার নীচে এমনকি সীমানার বাইরেও প্রকাশ্য আর গোপন সমঝোতায় নির্ধারিত হবে প্রায় ৪ কোটি আফগানের ভবিষ্যত।

আফগানিস্তানে যুক্তরাষ্ট্রের মধুচন্দ্রিমা কার্যত শেষ। কাবুল পতনের পরপরই চীন-রাশিয়ার তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় মনে হয়নি তালেবানদের স্বীকৃতি কিংবা সহযোগীতা দিতে কোন আপত্তি আছে তাদের। এটা প্রায় নিশ্চিত পশ্চিম থেকে আর্থিক সহযোগিতা আফগানিস্তানে, আগের মতো আর থাকবে না। সেক্ষেত্রে টাকার কুমির চীনের ওপর ভরসা করতে হচ্ছে তালেবানদের। তবে আফগানিস্তান যে নানা সাম্রাজ্যের বধ্যভূমি এটিও চীনের অজানা নয়। তাই তালেবানদের কতটুকু আগলে রাখবেন শি চিনপিং তা সময়ই বলে দেবে।

আফগানিস্তানে দক্ষিণ-পূর্ব দুইদিকেই পাকিস্তান। প্রতিবেশী দেশে পালাবদলে প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান উচ্ছসিত প্রশংসা করেছেন তালেবানদের। ইমরান পরিস্থিতিকে দেখছেন সামনের দিনে কাবুলে ইসলামাবাদের সুদিন হিসেবে। এছাড়াও পাকিস্তানে তালেবান সহানুভূতির কমতি নেই। কাবুল পতনে পাকিস্তান জামায়াত ইসলামীসহ বহু র্ধমীয় নেতা, তালেবানের বিজয় হিসেবে উল্লেখ করেছে।

কাবুলে ক্ষমতার পালাবদল ভারতের জন্য কৌশলগতভাবে গভীর। দিল্লী এখনও সতর্ক নজর রাখছে। পাকিস্তানের গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআইএর বিরুদ্ধে তালেবানকে সহযোগিতার অভিযোগ বহু পুরোনো। আর আফগান সীমান্তের একটি অংশ বিতর্কিত কাশ্মীরঘেষা হওয়ায় এ অঞ্চলে পাকিস্তানের বাড়তি সুবিধা ভারতের অস্বস্তির কারণ হতে পারে।

আফগানিস্তানে রাশিয়ার তিক্ত অভিজ্ঞতা আছে। তাই দেশটি আরও বেশি সতর্ক। তবে যুক্তরাষ্ট্রের প্রভাবহীন আফগান জনপদে কোন পরাশক্তিকে খালি মাঠে গোল দেয়ার সুযোগ দেবে না রাশিয়া।

দুই দশক পর তালেবানের প্রত্যাবর্তনে নিরাপত্তা বিশ্লেষকদের আশঙ্কা, বৈশ্বিক জঙ্গিবাদের আতুরঘর বা রপ্তানিকারক না হয়ে যায় আফগানিস্তান। তবে তালেবানদের মধ্যেও ২০ বছরে ঘটেছে প্রজন্মের পরিবর্তন। দীর্ঘ যুদ্ধ এই কট্টোরপন্থীদের কতটুকু পরিণত করেছে সেদিকে তাকিয়ে পুরো বিশ্ব।


অন্যান্য সংবাদ
%d bloggers like this:
%d bloggers like this: