রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ১২:৩৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
ফরিদপুরের সালথায় ইমাম বাড়িতে ঐতিহ্যবাহী নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা একনজরে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ১৬ দলের খেলোয়াড় তালিকা অবশেষে নগরীতে নামলো স্বস্তির বৃষ্টি সৌদি জোটের হামলা: ইয়েমেনে নিহত ১৬০ ডেঙ্গুতে চলতি বছর আক্রান্ত ২১ হাজার ২শ ছাড়াল প্রতিদিন টিকা পাবে ৪০ হাজার শিশু ডেঙ্গু আক্রান্ত ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী মার্কিন যুদ্ধজাহাজকে রাশিয়ার ধাওয়া টেকসই স্যানিটেশন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে সমন্বিত প্রয়াসের আহ্বান ‘সরকার সবার জন্য নিরাপদ স্যানিটেশন নিশ্চিত করতে বদ্ধপরিকর’ ওমরাহ যাত্রীদের জন্য নতুন নির্দেশনা সাম্প্রদায়িক সংঘাতের চেষ্টায় আ.লীগের এজেন্টরা জড়িত: ফখরুল দ্রব্যমূল্য থেকে মানুষের চোখ সরাতেই কুমিল্লার ঘটনা: মান্না এই সরকারের অধীনে আর কোনো নির্বাচন নয়: সাকি প্রচণ্ড তাপে পুড়ছে দেশের ১৮ অঞ্চল সকালে দলের সঙ্গে যোগ দিলেন সাকিব রুহিয়া থানা বিএনপির মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত গোবিন্দগঞ্জে শহীদ মিনারের ভিত্তি প্রস্থর স্থাপন গাইবান্ধায় বিশ্ব খাদ্য দিবস পালিত অস্ত্রসহ একজনকে আটক করেছে র‌্যাব-৫

নদীর পানি বাড়ছেই, বিপাকে কয়েক লাখ মানুষ

রিপোর্টারের নাম
প্রকাশের সময় : রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ১২:৩৮ পূর্বাহ্ন
নদীর পানি বাড়ছেই, বিপাকে কয়েক লাখ মানুষ

পদ্মা-যমুনা-ব্রহ্মপুত্রসহ দেশের বিভিন্ন নদ-নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত রয়েছে। এতে বন্যা পরিস্থিতি আরো আবনতি হয়েছে। কুড়িগ্রাম, ফরিদপুর, সিরাজগঞ্জসহ কয়েক জেলায় পানিবন্দি কয়েক লাখ মানুষ।

আটটি নদীর পানি ১৯টি পয়েন্টে বিপদসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়। দেশের উত্তর, উত্তর-মধ্যাঞ্চল এবং মধ্যাঞ্চলের ১১ জেলার বন্যা পরিস্থিতির অবনতি-পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায়ও অব্যাহত থাকতে পারে। বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্র গতকাল নদ-নদীর অবস্থার প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

সেইসঙ্গে কয়েকটি জেলায় অব্যাহত আছে তীব্র নদী ভাঙন। ব্রহ্মপুত্র ও ধরলার পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় কুড়িগ্রামে বন্যা পরিস্থিতি আরো অবনতি হয়েছে। ব্রহ্মপুত্র তীরবর্তী উলিপুর, চিলমারী, রৌমারী উপজেলার তিন শতাধিক চরের লক্ষাধিক মানুষ পানিবন্দি রয়েছে।

এদিকে চলমান বন্যায় উত্তর-মধ্যাঞ্চলের জেলাগুলোর নিম্নাঞ্চলের বাসিন্দারা পানিবন্দী অবস্থায় মানবেতর জীবনযাপন করছেন। এসব এলাকায় পানিতে তলিয়ে রয়েছে হাজার হাজার হেক্টর ফসলের জমি। ভেসে গেছে পুকুরের মাছ। হাঁস মুরগি ও গবাদিপশু নিয়ে দুর্গতরা পড়েছেন মহা দুর্দশায়। ধানসহ মৌসুমি ফসলের ক্ষতিতে উৎকণ্ঠা বাড়ছে ক্ষতিগ্রস্তদের।

এছাড়া তিস্তা ও ধরলা নদী তীরবর্তী এলাকায় ভাঙন অব্যাহত রয়েছে। ফরিদপুরে বিপৎসীমার ৬৯ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে বইছে পদ্মার পানি। পানবিন্দি ৫০ হাজার পরিবারে এক লক্ষের বেশি। মধুমতি, আড়িয়াল খাঁর তীরে তীব্র ভাঙন অব্যাহত আছে।

সিরাজগঞ্জে যমুনার পানি বিপদসীমার ৬৬ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। পানিবন্দী রয়েছে অন্তত অর্ধলক্ষাধিক মানুষ। এছাড়া টাঙ্গাইল, রংপুর, রাজবাড়ি, জামালপুর, নীলফামারীসহ বেশ কিছু জেলায় বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে।


অন্যান্য সংবাদ
%d bloggers like this:
%d bloggers like this: