মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর ২০২১, ০৮:৫২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
গৌরীপুরে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে শেখ রাসেল দিবস পালিত হবিগঞ্জে শেখ রাসেল-এর ৫৮তম জন্মদিন উদযাপন সাম্প্রদায়িক অপতৎপরতা রুখতে মাঠে নামছে আ. লীগ ফেনীর নতুন পুলিশ সুপার আবদুল্লাহ আল মামুন হিজবুল্লাহর ভয়ে যুদ্ধে জড়াবে না ইসরায়েল পদোন্নতি পেলেন ডিএমপি কমিশনার ও র‍্যাব মহাপরিচালক শেখ রাসেলের ৫৮তম জন্মদিন উদযাপিত করোনায় কমেছে মৃত্যু, বেড়েছে শনাক্ত ২১ অক্টোবর শুরু হচ্ছে সাত কলেজের সশরীরে ক্লাস ‘কুমিল্লার ঘটনা সাজানো, সরকারকে বেকায়দায় ফেলতে পীরগঞ্জে হামলা’ ‘বুলেটের আঘাতে যেন আর কোন শিশুর প্রাণ না যায়’ জাপানে শেখ রাসেলের ৫৮তম জন্মদিন উদযাপিত কেরালায় ভয়াবহ বন্যায় মৃত্যু বাড়ছে দলের সংগে পাপনের জরুরি সভা, ঝাড়লেন রাগ রংপুর-ফেনীর এসপিসহ কয়েকজন পুলিশ কর্মকর্তা বদলি কিউকমের আরজে নিরব ও রিপন ফের রিমান্ডে সরকারকে প্রশ্নবিদ্ধ করতেই পীরগঞ্জে হামলা : তথ্যমন্ত্রী ‘শেখ রাসেল স্বর্ণ পদক’ বিতরণ করলেন প্রধানমন্ত্রী নেই কোনো নদী শাসন ব্যবস্থা বেতন আর মেয়াদ দুটোই বাড়তে যাচ্ছে ডোমিঙ্গোর

দ্বিতীয় দফায় ক্ষমতা নিয়ে বড় চ্যালেঞ্জের মুখে তালেবান

রিপোর্টারের নাম
প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর ২০২১, ০৮:৫২ পূর্বাহ্ন
দ্বিতীয় দফায় ক্ষমতা নিয়ে বড় চ্যালেঞ্জের মুখে তালেবান
বড় চ্যালেঞ্জের মুখে তালেবান

দ্বিতীয় দফায় আফগানিস্তানে ক্ষমতা নিয়ে বড় ধরনের চ্যালেঞ্জের মুখে আছে, তালেবান। ভঙ্গুর অবকাঠামো আর অর্থনৈতিক সংকটের বিরুদ্ধে লড়তে হবে, তাদের। সাথে আছে, ভেঙে পড়া প্রশাসনিক ব্যবস্থাপনা। এছাড়া, বিদেশি সাহায্য নির্ভর দেশটিতে পশ্চিমারা অনুদান বন্ধের ঘোষণা দেয়ায়; ধুকতে হবে, তাদের। মোকাবেলা করতে হবে, জঙ্গি গোষ্ঠি আইএসকেপিকে।

আফগানিস্তানে ২০ বছরের দখলদারিত্ব ছেড়ে লেজগুটিয়ে পালিয়েছে মার্কিন নেতৃত্বাধীন পশ্চিমারা। একইসাথে ক্ষমতায় এখন কট্টরপন্থি তালেবানরা।

বলা হচ্ছে, বহু জাতিগোষ্ঠির দেশটিতে সরকার পরিচালনা বড় চ্যালেঞ্জ হবে তাদের জন্য। আশরাফ গনি সরকারের রেখে যাওয়া দুর্বল শিক্ষা-স্বাস্থ্য খাতসহ মৌলিক সেবা উন্নয়নেও বেশ বেগ পেতে হবে।

এছাড়াও বিশ্বব্যাংক, আইএমএফসহ পশ্চিমাদের অনুদান বন্ধের ঘোষণায় তৈরি হতে পারে খাদ্য সংকট। কারণ জাতিসংঘের রিপোর্ট বলছে, আফগানিস্তানে মানবিক সহায়তার ওপর নির্ভর ৫০ শতাংশের বেশি মানুষ।

সরকারি আমলাসহ অনেকেই দেশ ছেড়েছেন। প্রশাসনিক এই সংকটও মোকাবেলা করতে হবে তালেবানকে। কাবুল বাসিন্দা মির্জা খান বলেন, চাকরির কোন সুযোগ নেই, তাই সবাই চিন্তিত। তালেবান সরকারের উচিৎ দেশে চাকরির সুযোগ তৈরির সাথে শিক্ষা খাতের উন্নয়ন করা।

প্রশাসনিক-আর্থিক সংকটের চেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ হবে, জঙ্গি গোষ্ঠি ‘আইএস খোরাশান প্রভিন্স-আইএসকেপি’কে ঠেকানো। ২০১৪ সালের পর চরম নিষ্ঠুরতার জন্য কুখ্যাতি আছে আই এসের আঞ্চালিক এই গোষ্ঠীর।

এপির সাংবাদিক ইলেন নিকমেয়ের বলেন, শেষমেষ আফগানিস্তানে জঙ্গি গোষ্ঠির জয় হয়েছে। যা বিশ্বব্যাপী জঙ্গিদের অনুপ্রেরণা হয়ে কাজ করবে। তবে নতুন শঙ্কা, এতে আফগানিস্তান জঙ্গীদের স্বর্গ রাজ্যে পরিণত হতে পারে।

দশকের পর দশক ধরে যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশটিতে একটি শক্তিশালী সামরিক বাহিনী তৈরিতেও কাজ করতে হবে, তালেবানকে। যাতে চীনের পাশাপাশি ময়দানে দেখা যেতে পারে, তুরস্ক ও পাকিস্তানকে। যা ভারত, যুক্তরাষ্ট্রসহ পশ্চিমাদের জন্য বড় এক অস্বস্তি হবে।


অন্যান্য সংবাদ
%d bloggers like this:
%d bloggers like this: