মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০৫:৫৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
অবশেষে এসপি’র হস্তক্ষেপে থানায় মামলা! যশোরে চোরাই ইজিবাইকসহ আটক ৪ স্বাধীনতাবিরোধী চক্রই দেশের সাম্প্রদায়িক হামলার জন্য দায়ী: ইনু মানিকগঞ্জে জাতীয় স্যানিটেশন মাস ও বিশ্ব হাত ধোয়া দিবস উদযাপন চকরিয়ায় পরোয়ানাভুক্ত আসামী গ্রেফতার ডিমলায় নিখোঁজের পাঁচদিন পর তিস্তা নদী থেকে এক ব্যক্তির লাশ উদ্ধার সাম্প্রদায়িক হামলা চালিয়ে রাজনৈতিক ফায়দার চেষ্টা বিএনপি’রঃ নানক বাংলাদেশকে ৫০০ মিলিয়ন ইয়েন অনুদান দিচ্ছে জাপান এ মাসে প্রবাসী আয় ১০০ কোটি ডলার ছাড়ালো জয় বাংলা ইয়ুথ এ্যাওয়ার্ডের আবেদনের সময় বাড়লো ভোলাহাটে ভেজাল আইসক্রীম কারখানায় র‌্যাবের অভিযান ৫৯ বিজিবি’র শিয়ালমারা সীমান্তে অভিযান ॥ ফেন্সিডিলসহ আটক ১ ২৪ ঘন্টায় ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে নতুন ১৯০ জন রোগী ভর্তি অপারেশন শেষে আইসিইউতে খালেদা জিয়া উমরাহ পালনে আর ১৪ দিনের অপেক্ষা নয় ভারতের কেরালা রাজ্যে বন্যায় প্রাণহানিতে মোমেনের শোক বহিস্কৃত নেতাকে মনোনয়ন দেয়ার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন বিদ্যুৎ সম্পর্কিত সব মামলা দ্রুত নিষ্পত্তির সুপারিশ রৌমারীতে সার সংকটে কৃষক বিপাকে মেলান্দহে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত-১, আহত ২

ঘিওরে মাদ্রাসা ছাত্রকে নির্মম পিটুনি, হাসপাতালে ভর্তি

ঘিওর (মানিকগঞ্জ) প্রতিনিধি
প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০৫:৫৮ পূর্বাহ্ন
ঘিওরে মাদ্রাসা ছাত্রকে নির্মম পিটুনি, হাসপাতালে ভর্তি

মানিকগঞ্জের ঘিওরে সাত বছরের এক মাদ্রাসা ছাত্রকে অমানুষিকভাবে পেটানোর অভিযোগ পাওয়া গেছে। বাঁশের কঞ্চি দিয়ে পেটানোর ফলে শরীরে আঘাতের চিহৃ ও প্রচন্ড ব্যাথা নিয়ে, মোঃ মইন উদ্দিন নামের ওই শিশুটিকে ঘিওর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে ওই ছাত্রের অভিভাবকসহ এলাকার মানুষজনের মাঝে সৃষ্টি হয়েছে মিশ্র প্রতিক্রিয়া।
গত বুধবার দুপুরে ঘিওর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গিয়ে শিশুটিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় দেখা গেছে।
উপজেলার বড়টিয়া ইউনিয়নের “হিজুলিয়া হিলফুল ফুযুল মাদরাসা ও এতিমখানা”য় গত সোমবার এই ঘটনাটি ঘটে। প্রতিষ্ঠানটি সমাজ কল্যাণ মন্ত্রনালয়ের ক্যাপিটেশন গ্রান্ড প্রাপ্ত। ঐতিহ্যবাহী এই প্রতিষ্ঠানে এমন ঘটনায় সারা ফেলেছে এলাকায়। এই প্রতিষ্ঠানের ছাত্র মোঃ মইন উদ্দিনকে পেটায় তার শিক্ষক আবু শাহমা। অভিযোগ-পড়ায় অমনোযোগীতা। রাগ সংম্বরন করতে না পারা এই শিক্ষক তার হাতে থাকা বাঁশের শক্ত কঞ্চি দিয়ে দুই বাহু ও পিঠে আঘাত করে। মাদরাসার অদূরে মইন উদ্দিনের বাড়ি। তার বাবার নাম আবু মুসা। সে এই মাদরাসার দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্র।
জানা গেছে, ছুটি শেষে মইন উদ্দিন তার বাড়ি যায়।তখন সে ব্যাথায় কান্না করছিল; গায়ে জ্বর। এরপর তাকে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসা হয় ঘিওর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে। এমনটা জানালেন মইন উদ্দিনের পিতা আবু মুসা।
হাসপাতালের মেডিকেল অফিসার ডা: সুজিত কুমার সরকার বলেন, শিশুটির শরীরের অনেক স্থানে আঘাতের চিহৃ। ভর্তির সময় হালকা জ্বর আর ব্যাথা ছিল ওই শিশুটির। ঔষধ দেয়া হয়েছে। এখন সে স্বাভাবিক আছে। কিছু পরীক্ষা দেয়া হয়েছে। রিপোর্ট পেলে বলা যাবে বিস্তারিত।
ওই মাদরাসায় সরজমিন গিয়ে দেখা গেল, কয়েকটি কক্ষে চলছে পাঠদান। কিছু ছাত্র বাইরে টুকিটাকি কাজ কর্ম করছে। কথা হলো অধ্যক্ষ মোঃ সাইফুল ইসলামের সাথে। তিনি বললেন, মাদরাসা শিক্ষার্থীকে মারধরের ঘটনাটি দুঃখজনক। শিক্ষকের অপরাধ প্রতিষ্ঠান বহন করবে না। আমি যতটুকু জেনেছি, পড়া শিখিয়ে দিচ্ছিল ওই শিক্ষক। ছাত্রটি বারবার অমনোযোগী হচ্ছে, তখন রেগে ঐ ছাত্রকে শাসন করে। বিষয়টি মাদ্রাসার পরিচালনা কমিটির মাধ্যমে সালিশে মিমাংসা করা হবে বলে তিনি শুনেছেন।
শিশুটির বাবা আবু মুসা বলেন, আমার শিশু ছেলেটাকে এমন অমানবিকভাবে মেরেছে, ছেলেটার দিকে তাকালে আমার বুক ফেটে কান্না আসছে। আমি এর সঠিক বিচার চাই।
ঘটনার বিষয়ে জানতে চাইলে ওই শিক্ষককে মাদ্রাসায় পাওয়া যায় নি। তার মোবাইল ফোনে অনেক চেষ্টা করেও পাওয়া যায়নি। তার মোবাইল ফোন বন্ধ ছিল।
যোগাযোগ করা হলে মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সভাপতি আহমেদ রাছেল বলেন, হিজুলিয়া হিলফুল ফুযুল মাদরাসার অনেক ঐতিহ্য আর পরিচিতি রয়েছে। প্রতিষ্ঠানের সুনাম রক্ষার্থে আমরা ওই শিক্ষককে চাকুরীচ্যুতও করতে পারি। এলাকার লোকজনদের সঙ্গে নিয়ে কীভাবে সমস্যার সমাধান করা যায়, তার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।
ঘিওর থানার ওসি মোঃ রিয়াজ উদ্দিন আহমেদ বিপ্লব বলেন, বিষয়টি নিয়ে কেউ অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত পূর্বক আইনানুক ব্যবস্থা গ্রহণ নেয়া হবে।


অন্যান্য সংবাদ
%d bloggers like this:
%d bloggers like this: