শুক্রবার, ২১ জানুয়ারী ২০২২, ০২:০১ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
ঘানায় ভয়াবহ বিস্ফোরনে নিহত ১৭ দুই সপ্তাহের জন্য সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ: স্বাস্থ্যমন্ত্রী বিরামপুরে মাদক মামলায় নবনির্বাচিত ইউপি সদস্য গ্রেফতার দাঁড়িয়ে থাকা ট্রলিতে ধাক্কা লেগে মোটরসাইকেল আরোহী নিহত নীলফামারীতে সড়ক দূর্ঘটনায় নারী শ্রমিক নিহত পটুয়াখালীতে আনসার-ভিডিপি সদস্যদের বাই-সাইকেল বিতরন গৌরীপুরে বিধু ভূষণ দাস স্মরনে আওয়ামী লীগের শোকসভা অনুষ্ঠিত ব্যাংকের সর্বনিম্ন বেতন নির্ধারণ করে সার্কুলার জারি ইভ্যালি ইস্যুঃ হাইকোর্টে তাহসানের আগাম জামিন মানিকগঞ্জে বড়ভাইকে হত্যার দায়ে ছোট ভাইয়ের মৃত্যুদন্ডাদেশ ফেনীতে প্রতারণায় সহায়তার অভিযোগে ৩ জনের কারাদন্ড জোর করে ওষুধ খাইয়ে গর্ভের সন্তান নষ্ট, আদালতে স্বীকারোক্তি মেহেরপুরে সাজাপ্রাপ্ত দুই পলাতক আসামি আটক এখন থেকে রাতেও নৌযান চলবে ‘বঙ্গবন্ধু মোংলা-ঘাষিয়াখালী ক্যানেলে’ মেসিকে বাদ দিয়েই আর্জেন্টিনা দল ঘোষণা আফগানিস্তানে চাকরি হারিয়েছে পাঁচ লাখের বেশি মানুষ আইপি টিভি-ইউটিউবে সংবাদ প্রচার নীতিমালা বিরোধী: তথ্যমন্ত্রী শেরপুরে রাস্তার পাশে বীর মুক্তিযোদ্ধার লাশ! পটুয়াখালীর দুমকিতে মসজিদ নির্মাণ কাজের উদ্বোধন বোনকে উত্যক্তের প্রতিবাদ করায়, ভাইয়ের পা ভেঙে দিল বখাটে

কুড়িগ্রামে চিল্লায় এসে মারা গেলেন কিশোরগঞ্জের বাসিন্দা

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি
প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ২১ জানুয়ারী ২০২২, ০২:০১ অপরাহ্ন

নিজেকে এবাদত মগ্ন রেখে আল্লাহর সন্তুষ্টি লাখের আশায় কিশোরগঞ্জে অনুষ্ঠিত মুলদারা তাবলগি জামাতের বিশ্ব মিনি এস্তেমা থেকে ৪০ দিনের চিল্লায় কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে এসে সেলীম উদ্দিন (৫২) নামের ইসলাম ধর্মভীরু মারা গেছেন।

তার বাড়ি কিশোরগঞ্জ জেলার বাজিতপুর উপজেলার দিঘির পাড় ইউনিয়নের পাটুলী গ্রামে। তিনি ওই গ্রামের মরহুম আঃ ওয়াহেদের ছেলে। নিহত ব্যক্তি দুই ছেলে ও তিন কন্যা সন্তানের জনক ছিলেন।

বৃহস্পতিবার ২ টা ১৫ মিনিটে তার প্রথম জানাযা ও এশার নামাজ শেষে রাতে দ্বিতীয় জানাযা সম্পন্ন করে মরহুমের উছিয়ত মতে তার মরদেহ কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলার কাশিপুর ইউনিয়নের কলমদারটারী জামে মসজিদ সলগ্ন গংগারহাট আজোয়াটারী কবর স্থানে দাফন করা হয়েছে।
দ্বিতীয় জানাযা পরিচালনা করেন চিল্লার জামাতের জিম্মাদার আনোয়ার হোসেন।

এতে উপস্থিত ছিলেন মরহুম সেলীম উদ্দিনের বড় ছেলে সজীব, তার ঢাকার বন্ধু বদরুল, মুলধারা তাবলীগের কুড়িগ্রাম জেলা মার্কাজ মসজিদের সাথী মতিয়ার রহমান, কামাল, ফুলবাড়ী উপজেলা তাবলীগের জিম্মাদার সাথী সুরুজ, তাবলীগের সাথী আব্দুল জলিল বিএসসি, মমিনুল ইসলামসহ ৪০ দিনের চিল্লার সাথী ও ধর্মপ্রাণ এলাকাবাসী।

কলমদারটারী নতুন জামে মসজিদ সংলগ্ন একটি মাঠে অনুষ্ঠিত প্রথম জানাযা নামা পরিচালনা করেন ৪০ দিনের চিল্লায় আসা মরহুমের সাথী ভাই হাফেজ মোঃ জিহাদুল ইসলাম।
সেলীম উদ্দিনের এ মৃত্যুতে তিনি ভাগ্যবান বলে সবার মুখে সাড়া পড়ে যায়। অনেকে মন্তব্য প্রকাশ আল্লাহর রাস্তায় আল্লাহর দ্বীন প্রচারে এসে মৃত্যুবরণ করাটা ভাগ্যের ব্যাপার ছাড়া কিছুনা। মরহুম ব্যক্তিকে আল্লাহ তায়ালা কবুল করেছেন এজন্য হয় তো তার মৃত্যু হয়েছে।

স্থানীয় ফুলবাড়ী কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের সাবেক মুয়াজ্জ্বীন ও হোমিও চিকিৎসক জাহাঙ্গীর আলম বলেন, ৪০ দিনের চিল্লায় আসা মরহুম সেলীম উদ্দিন ভাগ্যবান। তিনি নিঃসন্দেহে জান্নাতী। আল্লাহর রাস্তায় এসে যে মারা যায় সে জান্নাতী ইসলাম ধর্মীয় অনুরাগী যুবক সোয়াইব বলেন, আমি মরহুম সেলীম উদ্দিনের শরীক হয়েছি। দ্বীনের রাস্তায় এসে উনি মারা গেছেন। উনি শহিদের সমতুল্য। কোরআন হাদিসের আলোকে যারা দ্বীনের রাস্তায় এসে মারা যান। তাদের শহিদের মতো মর্যাদা পাবে।

মরহুম সেলীম উদ্দিনের বড় ছেলে সজীবের বন্ধু ঢাকার বদরুল আলম জানান, মরহুম সেলীম উদ্দিন চাচা ভালো মানুষ ছিলেন। তিনি ভালো মানুষ বলেই দ্বীনের রাস্তায় তার মৃত্যু হয়েছে। তিনি রাস্তায় বা অন্য কোথাও মারা না গিয়ে আল্লাহর রাস্তায় মারা গেছেন।

জানা গেছে, কিশোরগঞ্জ জেলা মিনি বিশ্ব এস্তেমা থেকে একচিল্লা ৪০ দিনের জামাতবন্দী হয়ে ঢাকা থেকে ৭ জানুয়ারি কুড়িগ্রামে জেলা মিনি বিশ্ব এস্তেমায় শরীক হন সেলীম উদ্দিন। তার সাথে ছিল ৪০ দিনের এক চিল্লার আরও ১২ সাথী।

৯ জানুয়ারি কুড়িগ্রামে জেলা মিনি বিশ্ব এস্তেমা শেষ হলে জিম্মাদার আনোয়ার হোসেনের তত্তাবধানে সেলীম উদ্দিনসহ ১৩ সাথী জামাতবন্দী হয়ে ফুলবাড়ী উপজেলায় সফরে আসেন। ফুলবাড়ী উপজেলার তাবলিগ জামাদের সাথীরা এ জামাতটি উপজেলার কাশিপুর ইউনিয়নে সফরের জন্য রোক দেন।

এই অনুযায়ী গত ৪/৫ দিন যাবৎ কাশিপুর ইউয়িনে দ্বীনের দাওয়াত শুরু করেন চিল্লার জামাতটি। একটি মসজিদে ৩ দিন থেকে বুধবার কাশিপুর ইউয়িনের নব নির্মিত কলমদারটারী জামে মসজিদে জামাতটি থেকে দ্বীনের দাওয়াতী কাজ শুরু করেন।

জামাতের অন্যান্য সাথীদের মতো বৃহস্পতিবার ফজরের নামাজ শেষ করে সকালে দাওয়াতী কাজে বের হন সেলীম উদ্দিন। তিনি দ্বীনের দাওয়াতী কাজ শেষ করে আজোয়াটারী জামে মসজিদে ফিরে বুকে ব্যথা অনুভব করেন।

জামাতের সাথীরা তাকে প্রথমে গ্যাসের ট্যাবলেট খাওয়ান। এতে তিনি কিছু সময়ের জন্য ব্যথামুক্ত হওয়ার পর আবারো ব্যতা কাতর হন। এতে তিনি মুখে কলেমা ও জিকির আজকার শুরু করেন। জামাতের সাথীরা তাকে বিশ্রামের জন্য শুয়ে রাখলে অল্প কিছুক্ষণের মধ্যে তার মৃত্যু ঘটে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত চিল্লার জামাতের জিম্মাদার আনোয়ার হোসেন বলেন, মরহুম সেলীম উদ্দিন ভাই অসুস্থ হওয়ার মাত্র ৫ মিনিটের মধ্যে মারা গেছেন। তিনি জামাতের সাথীদের প্রায়ই বলতেন, চিল্লায় এসে তার মৃত্যু হলে তাকে যেন যেখানে মৃত্যু হবে সেই এলাকাতেই কবরস্থ করা হয়।

এজন্য মরহুম সেলীম উদ্দিন ভাইযের পরিবারের সদস্যদের সম্মতি নিয়েই তার মরদেহ কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলার কাশিপুর ইউনিয়নের কলমদারটারী জামে মসজিদ সলগ্ন গংগারহাট আজোয়াটারী কবর স্থানে দাফন করা হয়েছে।

জিম্মাদার আনোয়ার হোসেন আরও বলেন, মরহুম সেলীম উদ্দিন ভাই সৌভাগ্যবান। তিনি আল্লাহর রাস্তায় মুত্যৃবরণ করেছেন। আমিও আমার জামাতের সাথীদের জানিয়ে দিয়েছি, আমার মৃত্যু হলে যেন এই স্থানে দাফন করা হয়।

 

 


অন্যান্য সংবাদ
%d bloggers like this:
%d bloggers like this: