বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ০৮:২৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
রাজধানীসহ সারাদেশে ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) পালিত ২৬ জেলায় পুলিশকে সতর্ক থাকার নির্দেশনা গ্রুপ চ্যাম্পিয়নও হতে পারে বাংলাদেশ পাপনের পরামর্শ কাজে লাগে, বললেন সাকিব শরণখোলায় বর্ষনে দূর্ভোগ কাটেনি মানুষের চাঁপাইনবাবগঞ্জে ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী উপলক্ষে আলোচনা সভা ও পুরস্কার বিতরণ শিবগঞ্জে সক্ষমতা বৃদ্ধিমূলক প্রশিক্ষণ শিবগঞ্জে ১২ অস্বচ্ছল মুক্তিযোদ্ধার বীরনিবাস নির্মাণের কাজের উদ্বোধন সুন্দরগঞ্জে ক্রেতা সেজে মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার সোনাগাজীতে তিন ফসলী জমি অধিগ্রহনের পাঁয়তারার প্রতিবাদ ভেঙে গেছে তিস্তার `রক্ষাকবচ`, ভয়াবহ বন্যার শংকা ফেতনা সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে: তথ্যমন্ত্রী সোনারগাঁয়ে মহাসড়কের পাশে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ হাতীবান্ধায় তিস্তার পানি বৃদ্ধি ফ্লাড-বাইপাস ভেঙ্গে ভাটিতে ভয়াবহ বন্যা বাঘাইছড়িতে পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা:) উদ্যাপিত বুকে পাঁ দিয়ে যুবক কে নির্যাতন করলেন ইউপি চেয়ারম্যান উলিপুরে তিস্তা নদীতে ডুবে এক ব্যক্তি নিখোঁজ ফরিদপুরে পবিত্র ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ও শনাক্ত দুটোই কমেছে বকশীগঞ্জে স্কুলছাত্রী ধর্ষনের অভিযোগে একজন আটক

কাল নির্ধারিত হবে জাপানি দুই শিশুর ভবিষ্যৎ

রিপোর্টারের নাম
প্রকাশের সময় : বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ০৮:২৯ অপরাহ্ন
কাল নির্ধারিত হবে জাপানি দুই শিশুর ভবিষ্যৎ

জাপানি দুই শিশুর কী হবে? সাত সমুদ্র তেরো নদী পেরিয়ে আসা মা পাবেন; নাকি দেশের নাগরিকত্ব আইন অনুযায়ী বাবার কাছেই থাকবে। শিশু অধিকার নিয়ে এমন জটিল মামলা আগে না আসায় অদ্ভুত এক আইনি সমীকরণের সামনে দাঁড়িয়ে দেশের সর্বোচ্চ আদালত।

সন্তানের অধিকার নিয়ে বাবা মায়ের দ্বন্দ্ব জাপান থেকে গড়িয়ে বাংলাদেশের আদালতে। এ নিয়ে গেলো দুই সপ্তাহে দ্বিধাবিভক্ত সামাজিক যোগাযোগ। দোষ কার? তা খুঁজতেই যেন ব্যস্ত সব মহল। কেউ খোঁজেনি ছোট্ট দুই শিশুর অধিকার যে কেড়ে নিয়েছে দুপক্ষই।

ভারতের সুপ্রিম কোর্টে প্রথম এমন মামলার নজির আসে ১৯৮৪ সালে। এরপর একে একে আটটি মামলা হয়েছে দেশটির সুপ্রিম কোর্ট। সব ক্ষেত্রেই শিশুদের অধিকারকে প্রাধান্য দিয়েছেন দেশটির সুপ্রিম কোর্ট। সবশেষ ২০২০ সালে আমেরিকা থেকে ২ সন্তান নিয়ে ভারতে চলে আসেন এক মা। আমেরিকান সেই বাবা নীলাঞ্জন ভট্টাচার্য ভারতের সুপ্রিম কোর্টে মামলা জিতে শিশু দুটি আমেরিকায় নিয়ে যেতে পেরেছিলেন। এক্ষেত্রে ভারতের সুপ্রিম কোর্ট গুরুত্ব দিয়েছিলো শিশু দুটি জন্ম, বেড়ে ওঠা, সামাজিকতা।

জাপান থেকে আনার পর শিশুদুটিকে রাজধানীর নবোদয় প্রি ক্যাডেট স্কুলে ভর্তি করেছেন তাদের বাবা। কিন্তু জাপানে তারা পড়তো আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল স্কুলে। দুটি স্কুলের পাশাপাশি ছবি হয়তো বলে দেবে বাস্তবতা কতটা ফারাক।

হাইকোর্টের আদেশের পর থেকেই দুই শিশু আছেন পুলিশের ভিক্টিম সাপোর্ট সেন্টারে। এনিয়ে দুপক্ষ অভিযোগ তুললেও শুরুতে কোনো সমাধানে পৌঁছাতে পারেনি কেউ। দেরিতে হলেও এখন ভিক্টিম সাপোর্ট সেন্টার থেকে তাদের বের করতে সম্মত দুই পক্ষই।

এদিকে শিশু দুটির বাবার ভয়, জাপানে গেলে আবার গ্রেপ্তার হবেন তিনি।

৩১ আগস্ট মঙ্গলবার শিশু দুটিকে হাজির করা হবে হাইকোর্টে। সেখানেই নির্ধারিত তাদের ভবিষ্যৎ।


অন্যান্য সংবাদ
%d bloggers like this:
%d bloggers like this: