বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০৬:৫৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
ধামইরহাটে নৌকা প্রার্থী ইউপি চেয়ারম্যান শাহজাহান আলী কমলের বিশাল কর্মী সভা গাইবান্ধায় স্ত্রী হত্যার দায়ে স্বামীর মৃত্যুদন্ড বাড়িতে বাবার লাশ রেখে পরীক্ষা হলে মেরাজ শিবগঞ্জে নদী ভাঙন আতঙ্কে গ্রামবাসী, পরিদর্শনে পাউবি বকশীগঞ্জে তিন করাত কল মালিককে জরিমানা নাচোল উপজেলা চেয়ারম্যান কাদেরের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ মানিকগঞ্জে পুলিশ সুপারের সাথে বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের মতবিনিময় সভা দেড়বছর পর যাত্রা করলো বেনাপোল এক্সপ্রেস ক্যামব্রিয়ানের কোটি কোটি টাকা রাজস্ব ফাঁকি কৃষি জমি নষ্ট করে বালু ভরাট চলমান উন্নয়নকে প্রশ্নের মুখে শিবপুরে দরিদ্র কৃষকের স্বপ্ন ভেঙে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা লেডি বাইকার রিয়াকে আগাম জামিন দিয়েছেন হাইকোর্ট দশ বছরে টেকসই উন্নয়নের লক্ষ্যমাত্রা অর্জিত হবে: প্রধানমন্ত্রী ‘অতিশয় বৃহৎ সংগ্রামের’ জন্য প্রস্তুত হতে বললেন কিম এবার প্রতিবেশী ভারতে ‘ওমিক্রন’ শনাক্ত মিয়ানমারে সেনাবাহিনীর হামলায় পালাচ্ছে হাজার হাজার বাসিন্দা আগামী তিন দিন বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে- আবহাওয়া অধিদপ্তর কমলো এলপি গ্যাসের দাম অভিবাসীর সংখ্যায় বিশ্বে বাংলাদেশ ষষ্ঠ চাঁপাইনবাবগঞ্জে তথ্য অধিকারের গুরুত্ব নিয়ে সংলাপ অনুষ্ঠিত

করোনায় শনাক্ত কমলেও বেড়েছে মৃত্যু

রিপোর্টারের নাম
প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০৬:৫৩ অপরাহ্ন
করোনায় শনাক্ত কমলেও বেড়েছে মৃত্যু

দেশে করোনায় আরও ৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে পুরুষ ৩ এবং নারী ৬ জন। এ নিয়ে মোট প্রাণহানি হলো ২৭ হাজার ৯৭০ জনের।

৮৩৬ টি ল্যাবে ২৪ ঘণ্টায় ১৮ হাজার ৮৮৮ নমুনা পরীক্ষায় করোনা শনাক্ত হয়েছে ২৩৭ জনের। পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ১ দশমিক দুই-পাচ শতাংশ।

বৃহস্পতিবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, দেশে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়ালো ১৫ লাখ ৭৫ হাজার ১৮৫ জনে। সুস্থ হয়েছেন আরও ৩৬০ জন। এ নিয়ে মোট সুস্থ ১৫ লাখ ৩৯ হাজার ৫৫৩ জন।

গত এক সপ্তাহে দেশে মোট ১ হাজার ৫৮৭ জন কোভিড রোগী শনাক্ত হয়েছে, যা আগের সপ্তাহে ছিল ১ হাজার ৪৮৮ জন। অর্থাৎ, এক সপ্তাহে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়েছে ৬ দশমিক ৭ শতাংশ।

আর গত সাত দিনে মারা গেছেন আরো ৩৪ জন, আগের সপ্তাহে কোভিডে মৃত্যুর সংখ্যা ছিল ২৭ জন। অর্থাৎ, এক সপ্তাহে কোভিডে মৃত্যুর সংখ্যা ১৪ দশমিক ৮ শতাংশ বেড়েছে।

এই ৩১ জনের মধ্যে ১৬ জনেরই কোনো না কোনো ধরনের দুরারোগ্য অসংক্রামক ব্যাধি বা কোমরবিডিটি ছিল। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি ৭০ দশমিক ৬ শতাংশ ডায়াবেটিসে, ৬৪ দশমিক ৭ শতাংশ উচ্চ রক্তচাপে এবং ৪১ দশমিক ২ শতাংশ হৃদরোগে ভুগছিলেন।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনার সংক্রমণ দেখা দেয়। কয়েক মাসের মধ্যে এই ভাইরাস বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে পড়ে।বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের প্রথম সংক্রমণ ধরা পড়েছিল গত বছরের ৮ মার্চ।

গত ৩১ অগাস্ট তা ১৫ লাখ পেরিয়ে যায়। এর আগে ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের ব্যাপক বিস্তারের মধ্যে ২৮ জুলাই দেশে রেকর্ড ১৬ হাজার ২৩০ জন নতুন রোগী শনাক্ত হয়।

প্রথম রোগী শনাক্তের ১০ দিন পর গত বছরের ১৮ মার্চ দেশে প্রথম মৃত্যুর তথ্য নিশ্চিত করে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। ২৯ আগস্ট তা ২৬ হাজার ছাড়িয়ে যায়। তার আগে ৫ অগাস্ট ও ১০ অগাস্ট ২৬৪ জন করে মৃত্যুর খবর আসে, যা মহামারীর মধ্যে এক দিনের সর্বোচ্চ সংখ্যা।


অন্যান্য সংবাদ
%d bloggers like this:
%d bloggers like this: