রবিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১, ০৪:২৩ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
বাংলার মাটি থেকে রাজাকারদের বিতাড়িত করবো: তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী স্ত্রীর মুখে বিষ ঢেলে হত্যার অভিযোগ স্বামীর বিরুদ্ধে বিগ বসে’ কি ফিরবেন শেহনাজ ২৪ ঘণ্টায় আরও ৫৩ ডেঙ্গু রোগী আক্রান্ত ভিকি-ক্যাট এর কোর্ট ম্যারেজ সম্পন্ন! জাওয়াদের প্রভাব : সেন্টমার্টিনে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচল বন্ধ আল-আকসায় থাই সুন্দরী উত্তেজনা জেরুজালেমে সাকিবকে রেখেই নিউজিল্যান্ড সফরের দল ঘোষণা ওমিক্রনের মাঝে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে যাচ্ছে ভারত যবিপ্রবির প্রথম বর্ষ ভর্তির মেধা তালিকা প্রকাশ বাংলাদেশে আবারো চালু হলো (ভিসা অন-অ্যারাইভাল) হিলি ইমিগ্রেশন ও স্থলবন্দরে ওমিক্রন প্রতিরোধে বাড়তি সতর্কতা হিলি স্থলবন্দর পরিদর্শন করলেন এনবিআর চেয়ারম্যান শিবগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনা নিয়ে সংঘর্ষে আহত ৩ মরা গাছে টেন্ডারে তাজা গাছে করাত টঙ্গীতে হাফ ভাড়ার দাবিতে শিক্ষার্থীদের মহাসড়ক অবরোধ অন্ত:সত্ত্বা নারীর উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় গ্রেফতার ১ রাজনৈতিক ইন্ধন আছে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে : সেতুমন্ত্রী গরুর খামারে পুলিশ পরিচয়ে ডাকাতি, ১৫টি গরু লুট গোয়ালন্দে ইয়াবাসহ আটক ২

আদালতে ভার্চুয়াল শুনানিতে ৬৯,৬৫৫ আসামির জামিন

রিপোর্টারের নাম
প্রকাশের সময় : রবিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১, ০৪:২৩ পূর্বাহ্ন
আদালতে ভার্চুয়াল শুনানিতে ৬৯,৬৫৫ আসামির জামিন

সারাদেশে ৪৬ কার্য দিবসে অধঃস্তন আদালত হতে ভার্চুয়াল শুনানিতে ৬৯ হাজার ৬৫৫ জন আসামি জামিন পেয়ে কারামুক্ত হয়েছেন।
সুপ্রিমকোর্টের মুখপাত্র ও বিশেষ কর্মকর্তা মোহাম্মদ সাইফুর রহমান বাসস’কে আজ এ তথ্য জানান।
তিনি বলেন, গত ১২ এপ্রিল হতে গত ১৭ জুন বৃহস্পতিবার পর্যন্ত মোট ৪৬ কার্য দিবসে সারাদেশে অধঃস্তন আদালত এবং ট্রাইব্যুনালে ১ লাখ ৩৭ হাজার ৩৩০টি মামলায় জামিনের দরখাস্ত ভার্চুয়াল শুনানির মাধ্যমে নিষ্পত্তি হয়েছে এবং মোট ৬৯ হাজার ৬৫৫ জন হাজতী ব্যক্তি জামিনে কারামুক্তি পেয়েছেন। এর মধ্যে এই ৪৬ কার্য দিবসে ভার্চুয়াল আদালতের মাধ্যমে মোট জামিন প্রাপ্ত শিশুর সংখ্যা ১১৬০ জন।
সুপ্রিমকোর্ট মুখপাত্র আরো জানান, গত ১৭ জুন সারাদেশে অধঃস্তন আদালত এবং ট্রাইব্যুনালে ২ হাজার ৬৯৪ ফৌজদারি মামলায় ভার্চুয়াল শুনানিতে জামিন-দরখাস্ত নিষ্পত্তি হয়েছে এবং ১ হাজার ৩৭২ জন হাজতী অভিযুক্ত ব্যক্তি জামিন প্রাপ্ত হয়ে কারাগার হতে মুক্তি পেয়েছেন।
মহামারি করোনাভাইরাস জনিত সংক্রমণ এড়াতে এবং উদ্ভূত পরিস্থিতিতে শারিরীক উপস্থিতি ব্যতিরেকে তথ্য-প্রযুক্তি ব্যবহার করে ভার্চুয়াল উপস্থিতিতে বিচার কার্যক্রম পরিচালনা শুরু হয়। এ জন্য তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার আইন-২০২০ প্রণয়ন করে সরকার এবং সুপ্রিমকোর্ট প্র্যাকটিশ ডাইরেকশন জারি করে। সে আলোকে ২০২০ সালের মে মাসে প্রথম দফায় অধঃস্তন আদালতে ভার্চুয়াল উপস্থিতিতে বিচার কার্যক্রম শুরু হয়। পরে করোনা সংক্রমণের হার কিছুটা কমলে স্বাভাবিক বিচার কার্যক্রম পরিচালনা শুরু হয়। চলতি বছরের মার্চ মাসে করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি পাওয়ায় ফের ভার্চুয়াল উপস্থিতিতে বিচার কার্যক্রম শুরু হয়। এর পর থেকে দ্বিতীয় দফায় টানা ৪৬ কার্য দিবস ভার্চুয়ালি বিচার কার্যক্রম চলছে। এটি পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত চলবে বলে জানায় সুপ্রিমকোর্ট প্রশাসন।


অন্যান্য সংবাদ
%d bloggers like this:
%d bloggers like this: